fairnews24 Logo

ডিমলায় ৬ বছরের শিশুকে ধর্ষন ॥ ধর্ষক পালাতক

এফএনএস (এমএমআই লিটন; ডিমলা, নীলফামারী) : | 08 Jan 2017   01:37:12 PM   Sunday
 ডিমলায় ৬ বছরের শিশুকে ধর্ষন ॥ ধর্ষক পালাতক

নীলফামারীর ডিমলায় শনিবার সন্ধ্যায় ৬ বছরের শিশু ধর্ষনের স্বীকার হয়েছে। খালিশা চাপানি ইউনিয়নের ডালিয়া গোডাউনের হাট গ্রামে শিশুটিকে ধর্ষন করা হয়। শিশুটিকে পরিবারের লোকজন উদ্ধার করে ডিমলা হাসপাতালে ভর্তি করলে অবস্থার অবনতি হতে থাকলে। রাতে সাড়ে ৯টায় উন্নত চিকিৎসার জন্য রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থান্তর করা হয়েছে।
এলাকাবাসী সুত্রে জানা যায়, গোডাউনের হাট গ্রামের ছামিনুর রহমানের কন্যা (সাকিলা আক্তার) ও গোডাউনের হাট সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ১ম শ্রেনীর ছাত্রীটি সন্ধ্যায় বাড়ীর পাশ্ববর্তী আবদুল জব্বারের বাড়ী বেড়াতে যায়। এ সময় বাড়ীতে কেহ না থাকার সুবাদে জব্বারের লম্পট পুত্র ডোমার সরকারী কলেজের অনার্স ২য় বর্ষের ছাত্র সবুজ (২২) শিশুটিকে রুমের ভিতরে ডেকে নিয়ে ধর্ষন করে। শিশুটির আর্তচিৎকারে এলাকার লোকজন ছুটে এসে তাকে উদ্বার করে খালিশা চাপানি ইউপি চেয়ারম্যান আতাউর রহমানের নিকট নিয়ে গেলে, তিনি দ্রুত হাসপাতালে ভর্তি করতে বলেন। ডিমলা হাসপাতালে ভর্তি করার পর জরুরী বিভাগে কর্মরত চিকিৎসক অনুপ কুমার রায় রংপুর হাসপাতালে স্থান্তর করেন। এ সময় ডিমলা থানার এসআই সজল কুমার সরকার হাসপাতালে চিকিৎসাধীন শিশুটির পরিবারের সাথে কথা বলেন।
 খালিশা চাপানি ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আতাউর রহমান বলেন, ঘটনাটি স্পর্শকাতর হওয়ায় দ্রুত পুলিকে অবগত করা হয়েছে। ডিমলা হাসপাতালের কর্মরত চিকিৎসক ডাক্তার অনুপ কুমার রায় বলেন, প্রাথমিকভাবে শিশুটিকে দেখে ও তার পরিবারের সাথে কথা বলে মনে হচ্ছে শিশুটিকে ধর্ষন করা হয়েছে। শিশুটির উন্নত চিকিৎসা জন্য দ্রুত রংপুর হাসপাতালে হস্তান্তর করা হযেছে। ডিমলা থানার এসআই সজল কুমার সরকার বলেন, শিশুটির পরিবার এখনও থানায় অভিযোগ দেয়নি কিন্তু পরিবারের লোজনের ভাষ্যমতে লম্পট সবুজকে গ্রেফতারের জন্য পুলিশ অভিযান পরিচালনা করা হচ্ছে। ডিমলা থানার কর্মকর্তা ইনচার্জের দায়িত্বে থাকা এসআই সাহাবুদ্দিন বলেন, শিশুর পরিবারকে থানায় অভিযোগ দিতে বলা হয়েছে পরিবারটি রংপুর হাসপাতালে শিশুর চিকিৎসা নিয়ে ব্যস্ত থাকায় এখনও অভিযোগ দেয়নি।

সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
কপিরাইট © 2018-12-14 এফএনএস২৪.কম কর্তৃক সর্ব স্বত্ব ® সংরক্ষিত।